কেরোয়া ইউপি উপ-নির্বাচন: মাঠে আ.লীগ, ছেড়ে দেবে না বিএনপি

47

আলী আজগর রবিন রায়পুর প্রতিনিধিঃ লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার ৬ নং কেরোয়া ইউনিয়ন পরিষদের উপ-নির্বাচন আগামী ২০ অক্টোবর। নির্বাচনকে ঘিরে জমজমাট হয়ে উঠেছে প্রচার-পচারনা। চলছে অভিযোগ পাল্টা অভিযোগ। প্রচার-প্রচারনায় এগিয়ে রয়েছে আ.লীগের প্রার্থী শাহিনুর বেগম রেখা। প্রচারনায় কিছুটা পিছিয়ে থাকলেও খালি মাঠে গোল দিতে দেয়া হবে না বলে হুঁশিয়ারি উচ্ছারণ করেছে বিএনপির প্রার্থী নজরুল ইসলাম ভুঁইয়া (সরকার)

বিএনপির পার্থী নজরুল ইসলাম ভুঁইয়া অভিযোগ করে বলেন, আমাকে নানাভাবে হুমকি-ধমকি দেয়া হচ্ছে। নেতা-কর্মীদের দেখানো হচ্ছে ভয়-ভীতি। নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্গন করে বহিরাগতদের দিয়ে মোটরসাইকেল শোডাউন করে ভয়ের পরিবেশ তৈরি করা হচ্ছে। শোডাউন থেকে দেয়া হচ্ছে উসকানিমূলক শ্লোগান। তারপরেও আমরা মাঠে রয়েছি। জনগণের পাসে দাঁড়ানোর জন্য আমরা সর্বোচ্চ ত্যাগ শিকার করতে প্রস্তুত আছি। আমরা আওয়ামী লীগ কে খালি মাঠে গোল দিতে দিবো না। আমি আশাবাদী নির্বাচন সুষ্ঠু হলে বিপুল ভোটের ব্যবধানে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে জনগণের সেবা করার সুযোগ পাবো।

এদিকে আওয়ামী লীগের প্রার্থী শাহিনুর বেগম রেখা বলেন, আমার বিরুদ্ধে বিএনপির প্রার্থীর অভিযোগগুলো সত্য নয়। তিনি অসত্য অভিযোগ করে রাজনৈতিক ফায়দা হাসিলের চেষ্টা করছেন।

অভিযোগ করা তাদের স্বভাবজাত অভ্যাস উল্লেখ করে তিনি বলেন, তিনি (বিএনপির প্রার্থী) নিয়মিত প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছেন, পোষ্টারিং করেছেন কিন্তু কোথাও কোন বাধার মুখে পড়েছেন বলে কোন অভিযোগ প্রমাণ করতে পারবেন না।

তিনি আরো বলেন, আমি ভোটের জন্য ভোটারদের ধারে ধারে ঘুরছি। দিন-রাত চসে বেড়াচ্ছি ভোটের মাঠ। তাদের কাছ থেকে যথেষ্ট সাড়া পাচ্ছি। বিপুল পরিমান ভোট পেয়ে জনগণের সেবা করার সুযোগ পাবো বলে আমি আশাবাদী।

উল্লেখ্য, কেরোয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মরহুম শাহজাহান কামাল করোনায় ইন্তেকালের পর ইউপি উপ-নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়। তফসিল ঘোষণার পর আ.লীগ থেকে একধিক প্রার্থী নির্বাচনের ঘোষণা দিলেও দল থেকে সাবেক চেয়ারম্যান শাহজাহান কামালের সহধর্মীনি শাহিনুর বেগম রেখাকে মনোনয়ন দেয় দলটি।

এদিকে বিএনপি থেকে একক প্রার্থী হয়েছেন নজরুল ইসলাম ভুঁইয়া (সরকার)।